1. abubakarpressjp@gmail.com : Md Abu bakar : Md Abubakar bakar
  2. sharuarpress@gmail.com : admin520 : Md Gulam sharuar
  3. : alamin328 :
  4. jewela471@gmail.com : Jewel Ahmed : Jewel Ahmed
  5. ajkershodesh@gmail.com : Mdg sharuar : Mdg sharuar
সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:১৮ পূর্বাহ্ন
হেড লাইন
জগন্নাথপুর মোবাইল মার্কেটের নির্বাচন সম্পন্ন: সভাপতি মো: রুপ মিয়া ও সাধারন সম্পাদক আবু তাহের সুনামগঞ্জে অবৈধভাবে বাজান নির্মাণ করায় এলাকাবাসী মানববন্ধন জীবন পুষ্পশয্যা নয়, লক্ষ্যে স্থির থাকলে সফলতা আসবে : রহমত উল্লাহ চৌধুরী সুমন রানীগঞ্জ ফ্রেন্ডস্ ক্লাবের দুই বছর মেয়াদী কমিটি গঠন রবার্ট স্টিফেনসন স্মিথ লর্ড ব্যাডেন পাওয়েলর ১৬৭ তম জন্মবার্ষিক উদযাপন উপলক্ষে র‌্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত কোম্পানীগঞ্জে মায়ের দুধের উপকারিতা বিষয়ে অবহিতকরণ সভা সুনামগঞ্জে লর্ড ব্যাডেন পাওয়েল’র ১৬৭ তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন ইয়ুথ লিডারশীপ অ্যাওয়ার্ড এবং সেমিনারে অংশ নিতে ভারত-মালদ্বীপ যাচ্ছেন তুহিন জগন্নাথপুরে মুক্ত সমাজ কল্যাণ সংস্থার শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ বাংলাদেশের বাজারে আসছে ‘লং-লাস্টিং ভ্যালু কিং’ রিয়েলমি নোট ৫০

কোনো নিষিদ্ধ দল নির্বাচনে অংশ নিতে পারবে না : ইসি

  • Update Time : শুক্রবার, ৬ এপ্রিল, ২০১৮
  • ৬৭৬ Time View

আজকের স্বদেশ ডেস্ক::

স্থানীয় সরকার নির্বাচনে সেনা বাহিনী মোতায়েনের কথা ভাবা হচ্ছে না বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মো. রফিকুল ইসলাম। তিনি বলেন, খুলনা ও গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের সম্ভাবনা নেই। পাশাপাশি সীমিত পরিসরে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহার হবে এই নির্বাচনে। আর নির্বাচন সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য করতে গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্র বাছাই করে সেখানে বিশেষ নিরাপত্তার ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

শুক্রবার দুপুরে খুলনা সিটি কর্পোরেশন (কেসিসি) নির্বাচন উপলক্ষে রিটার্নিং অফিসার, সহাকারী রিটার্নিং অফিসার ও সহায়ক কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ কর্মশালা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। নির্বাচন কমিশনার বলেন, কোনো নিষিদ্ধ দল নির্বচানে অংশগ্রহণ করতে পারবে না। তবে ব্যক্তিগতভাবে যেকোনো লোক নির্বাচন করতে পারবেন।

সকল প্রার্থী যাতে সমান অধিকার পায় সেজন্য প্রশাসনকে নিদের্শনা দেয়া হয়েছে। আদালত থেকে কোনো প্রকার নির্দশনা না আসলে তফসিল অনুযায়ী নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে বলে জানান তিনি।

তিনি বলেন, বর্তমানে গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্র (ঝুঁকিপূর্ণ) ব্যাপারে আমরা খোঁজখবর নিচ্ছি। এইসব কেন্দ্রে যতদূর সম্ভব সিসি ক্যামেরা স্থাপন করা হবে। পাশাপাশি এইসব কেন্দ্রের দায়িত্বে যারা থাকবেন, তাদের বিশেষ ক্ষমতা দেয়া হবে।

তিনি বলেন, আমরা জোর দিচ্ছি মনোনয়নপত্র কেনা-বেচা, যাচাই-বাছাইয়ে কোনো ধরনের ভুলত্রুটি ও অনিয়ম যাতে না হয়। এ জন্য আমরা এবার নির্বাচন পরিচালনাকারীদের প্রশিক্ষণের ব্যাপারটি অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে নিয়েছি। এছাড়া প্রার্থীরা সবাই যাতে নির্বিঘ্নে প্রচার-প্রচারণা চালাতে পারে সে ব্যাপারেও প্রশাসনকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। তবে, নিয়মিত আইনশৃঙ্খলার যে বিষয়গুলো রয়েছে যেমন, কারো বিরুদ্ধে যদি কোনো মামলা থাকে, এ সব বিষয়ে আইন আইনের গতিতেই চলবে।

ইভিএম ব্যবহারের ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনার বলেন, এর আগে খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আমরা যে সব মেশিন ব্যবহার করেছিলাম তা এবার বাতিল করা হয়েছে। এই নির্বাচনে আমরা আরো উন্নত ইভিএম মেশিন ব্যবহার করব। তবে খুলনাতে কয়টি কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করা হবে সে ব্যাপারে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

সেনা মোতায়নের ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনার মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, প্রয়োজনে সেনা বাহিনী মোতায়েনের চিন্তা বিবেচনায় আসতে পারে। তবে স্থানীয় সরকার নির্বাচনে আমরা সেনা বাহিনী মোতায়েনের কথা ভাবছি না। সেনা বাহিনী মোতায়েনের সম্ভাবনাও নেই। এসময় তার সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন নির্বাচন কমিশনের অতিরিক্ত সচিব মোখলেসুর রহমান, যুগ্ম সচিব মিজানুর রহমানসহ নির্বাচন কমিশনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ।

 

আজকের স্বদেশ/জুয়েল

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2024
Design and developed By: Syl Service BD