Logo

April 10, 2021, 9:32 pm

সংবাদ শিরোনাম :
«» প্রেমিকের সঙ্গে স্ত্রীকে বিয়ে দিলেন স্বামী «» সরকারের কারণেই করোনা বেড়ে গেছে: ফখরুল «» দ. সুনামগঞ্জে হাজী সায়েস্তা খাঁন ও মাহদী চ্যারিটেবল ট্রাস্ট‘র উদ্যোগে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ «» সুনামগঞ্জ জেলা যুবলীগের উদ্যোগে মাস্ক ও হেন্ড সেনিটাইজার বিতরণ «» দ. সুনামগঞ্জে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেছে আমানাহ এইড «» বিশিষ্ট সাংবাদিক হাসান শাহারিয়ার মৃত্যুতে সুনামগঞ্জ প্রেসক্লাবের শোক প্রকাশ «» বাহুবলে এম পি মিলাদ গাজীর সুস্হতা কামনায় মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত «» যাদুকাটা নদীর পাড়ে জব্দকৃত বালু-পাথর নিলামে বিক্রি করার দাবী স্থানীয়দের «» জগন্নাথপুরে ১৫০টি পরিবারের মধ্যে ইফতার সামগ্রী বিতরণ «» একদিনে সর্বোচ্চ ৭৭ জনের মৃত্যুর রেকর্ড

দক্ষিণ সুনামগঞ্জে দুলাভাইয়ের ছুরিকাঘাতে হাতে শ্যালক খুন

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:

দক্ষিণ সুনাগঞ্জ উপজেলায় সৎ দুলা ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে সৎ শ্যালক রাসিক মিয়া (২৯) খুন হয়েছে। এ ঘটনায় ঘাতক দুলাভাই নাইজুল হক, সৎবোন ও সৎ মাকে গ্রেফতার করেছে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানা পুলিশ।

 

 

 

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী মুক্তাদির হোসেন। ঘাতক নাইজুল হক ছাতক উপজেলার খারাই গ্রামের জমসিদ আলীর ছেলে এবং মৃত রাসিক মিয়া দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানাধীন পূর্ব পাগলা ইউপির দামোধরতপী গ্রামের মৃত সফিক মিয়ার ছেলে।

 

 

 

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, দামোধরতপী গ্রামের মৃত সফিক মিয়ার দ্বিতীয় স্ত্রী ও তৃতীয় স্ত্রীর সন্তানদের মধ্যে সম্পত্তির ভাগ ভাটোয়ারা নিয়ে বিরোধ পূর্ব দিকে বিরোধ ছিল। গতকাল সোমবার(৫ এপ্রিল) বিকাল ৪ টায় দ্বিতীয় স্ত্রীর ছেলে রাসিক মিয়া ও তৃতীয় স্ত্রীর মেয়ে ছামিনা বেগমদের মধ্যে সম্পত্তির বিরোধ নিয়ে কথা কাটাকাটি ও তর্কবিতর্ক শুরু হয়। এসময় ছামিনা বেগমের স্বামী নাইজুল হক ধারালো চুরি দিয়ে তাঁর শ্যালক রাসিক মিয়ার পেঠে ঘাই মারে এবং এ আঘাতে রাসিক মিয়া অজ্ঞান হয়ে মাটিতে লুঠিয়ে পড়েন। তাৎক্ষণিক আশপাশ লোকজন তাঁকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত ০৯.০০ ঘটিকার সময় রাসিক আলী মারা যান।

 

 

 

 

 

খবর পেয়ে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানা পুলিশের উপ-পুলিশ পরিদর্শক দেবাশীষ দেব অভিযান চালিয়ে ঘাতক নাইজুল হক সহ তাহার শাশুড়ী নুরুল নেছা, স্ত্রী ছামিনা বেগম, শ্যালিকা রিনা বেগমদেরকে আটক করেন।  এঘটনায় রাসিক মিয়ার ছোট ভাই নাছির মিয়া বাদী হয়ে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

 

 

 

 

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানা পুলিশের উপ-পুলিশ পরিদর্শক ও তদন্তকারী অফিসার দেবাশীষ দেব জানান, ঘটনার পরপরই অভিযান করে আটককৃতদেরকে গ্রেফতার করে আদালতে চালান দেয়া হয়েছে। তদন্ত অব্যাহত আছে।

 

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী মুক্তাদির হোসেন মামলার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

 

 

 

আজকের স্বদেশ/তালুকদার