Logo

June 7, 2020, 3:31 am

সংবাদ শিরোনাম :

নিখোঁজ শিশুর উলঙ্গ মরদেহ মিলল ডোবায়

আজকের স্বদেশ ডেস্ক::

বরগুনার বেতাগী উপজেলায় স্কুলে যাওয়ার পর নিখোঁজ শিশুর মরদেহ উলঙ্গ অবস্থায় বাড়ির পাশের ডোবা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। তাকে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ পরিবারের। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

শিশুটির নাম তামিমা আক্তার (৬)। সে বেতাগী উপজেলার মোকামিয়া ইউনিয়নের মাছুয়াখালী গ্রামের শহিদুল ইসলামের মেয়ে ও স্থানীয় মাছুয়াখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির শিক্ষার্থী।

স্থানীয়রা জানান, প্রতিদিনের মতো বৃহস্পতিবার সকালে ড্রেস পরে স্কুলে যায় তামিমা। ছুটি শেষে বিকেল পর্যন্ত বাড়িতে না ফেরায় খোঁজাখুঁজি ছাড়াও এলাকায় নিখোঁজ সংবাদ জানিয়ে মাইকিং করা হয়। সন্ধ্যার দিকে বাড়ির অদূরে ডোবার মধ্যে তার মরদেহ দেখতে পান স্থানীয়রা।

বেতাগী থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত) মো. ফেরদৌস আলম জানান, শিশুটিকে উলঙ্গ অবস্থায় পাওয়া গেছে। মরদেহের পাশেই পাওয়া গেছে স্কুল ব্যাগ ও পরনের পাজামা।

ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহটি মর্গে পাঠানো হয়েছে। পরিবার অভিযোগ করেছে- শিশুটিকে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে। বিষয়টি ময়নাতদন্তের পর নিশ্চিত হওয়া যাবে।

 

 

আজকের স্বদেশ/তালুকদার