Logo

August 13, 2020, 8:49 am

সংবাদ শিরোনাম :
«» এস কে সিনহাসহ ১১ জনের বিচার শুরু «» ছাতকে প্রবীন আ’লীগ নেতা মাষ্টার আলতাবুর রহমানের ইন্তেকাল «» ভরিতে সাড়ে ৩ হাজার টাকা কমল স্বর্ণের দাম «» সিলেট বিভাগে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৯ হাজার ছাড়াল «» মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে কানাইঘাট দীঘিরপার ইউপিতে ২৬০ জনের মাঝে ভাতার বই বিতরণ «» ১৫১ সদস্যের জগন্নাথপুর উপজেলা আন্তর্জাতিক গীতিকবি সাংস্কৃতিক পরিষদ যুক্তরাজ্যের কমিটি গঠন «» সাংবাদিক গোলাম সারওয়ারের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী আজ «» জগন্নাথপুরে আরও ৪জন করোনায় আক্রান্ত: মোট আক্রান্ত ১২৩ «» প্রখ্যাত বাউল শিল্পী লিপি সরকারের স্মরণে সুতাংয়ে শোক সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত «» দিরাইয়ে শোক দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনের লক্ষে প্রস্তুতি সভা

বাড়ি পৌঁছে দেয়ার কথা বলে ৫ম শ্রেণির ছাত্রীকে গণধর্ষণ

আজকের স্বদেশ ডেস্ক::

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলার আমিশাপাড়া ইউনিয়নে ৫ম শ্রেণির এক ছাত্রীকে (১৩) গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় ওই ছাত্রীর মায়ের করা মামলায় সজিব হোসেন (২৫) ও রাজন (২৪) নামে দুই যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার দুপুরে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে সকালে ওই ছাত্রীর মা বাদী হয়ে তিনজনকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে সোনাইমুড়ী থানায় মামলা করেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার সকালে মেয়েটি তার বড় বোনের বাড়ি পশ্চিম চাঁদপুর থেকে নিজ বাড়ি আমিশাপাড়া ইউনিয়নের পানিয়া শালা গ্রামের উদ্দেশ্যে রিকশায় করে যাচ্ছিল।

পথে আমিশাপাড়া বাজারে রিকশা স্ট্যান্ডের জাহান প্লাজার সামনে নামে সে। এ সময় বজরগ্রাঁও গ্রামের পণ্ডিত বাড়ির নুর নবী বাহারের ছেলে সজিব হোসেন তাকে বাড়ি পৌঁছে দেয়ার কথা বলে সিএনজিতে তুলে নেয়।

পরে কিছু দূর যাওয়ার পর সোহাগ ও শুক্কুর মিয়ার বিল্ডিংয়ের সামনে সিএনজিটি বন্ধ করে দেয় সে।

সজিব মেয়েটিকে কিছুক্ষণ টিভি দেখানোর কথা বলে দলিল লেখক সহিদ উল্যাহ সোহাগের বিল্ডিংয়ের ৫ম তলার একটি কক্ষে নিয়ে যায়।

সেখানে নাঈম (২৫) ও রাজন ছিলো। এ সময় তারা ওই ছাত্রীকে আটকে রেখে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। ধর্ষণ শেষে তাকে বাড়ির উদ্দেশ্যে একটি রিকশা ভাড়া করে দেয় তারা।

এ সময় মেয়েটির চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে তাকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে সোনাইমুড়ী থানা পুলিশে খবর দেন।

সোনাইমুড়ী থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুস সামাদ বলেন, এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত দুইজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

অপর আসামিকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। মেয়েটিকে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

 

আজকের স্বদেশ/তালুকদার